অন্য বসন্তে

      No Comments on অন্য বসন্তে


সালেহীন সাজু

উত্তরী হাওয়া এসে ফিরে গেলো দূরের বিস্তীর্ণ মাঠে
আলতা রাঙা পায়ে হেঁটে, শুভ্রতার আচঁল উড়িয়ে
তুমি চুপিচুপি এসে দাঁড়ালে আমার দ্বারে
কড়া নাড়ো গোপনে, যৌবনের প্রথম ফুল হাতে
মাথার উপরে তোমার সূর্যমুখি, ব্যাপ্তিতে দ্বীপ্তিমান
ঠোঁটে তোমার ফাগুনের আগুন, স্পষ্ট, জাজ্বল্যমান,

হঠাৎ জেগে দেখি, ঘুমের অতলে আমি স্বপ্ন দেখছি..

অতঃপর অবাক আমি, বিস্ময়ে চেয়ে দেখি
পড়ন্ত বিকেলের নিস্তেজ সোনা রোদ
ছড়িয়ে আছে, জড়িয়ে রেখেছে আমার দেহখানি
শান্ত, শীতল দেহখানা বেয়ে বেয়ে সে রোদ
ধীরে ধীরে হেঁটে যায় পশ্চিমের জানালায়,
তারপর আঁধারের আগ্রাসী আগমনে
দিবসের শেষ সোনা রোদ্রটুকুও মুছে যায়
দ্রুত ই হারিয়ে যায়, বিলীন হয় শূন্য চিলেকোঠায়,

অন্ধকার নামে আঙিনায়, ঝরা বনে দমকা হাওয়া বয়,
আমি আবার ঘুমিয়ে পড়ি, ঘুমের মাঝে অন্য বসন্তে।

Please follow and like us:
error0

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *